শ্রীখোলা

ভালো লেগেছে
0

শ্রীখোলা (Srikhola) – দার্জিলিং এর একটি ছোট্ট গ্রাম যেখানে সচরাচর পর্যটকরা যান না৷ তবে যারা সান্দাকফু – ফালুট ট্রেকিং করতে যারা যান তারা শ্রীখোলার সৌন্দর্যে ক্ষণিকের জন্য হলেও থমকে যান৷ এখানে অতিথিদের স্বাগত জানায় শান্ত সুন্দর শ্রীখোলা নদী যার উপরে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়ে দু’শো বছরের ঝুলন্ত ব্রিজ৷ সবুজে ঘেরা এই গ্রামে ক্ষণিকের বিশ্রাম নতন অক্সিজেন জোগায় যাযাবর মনে৷

এখানে আছে ইলেকট্রিক সমস্যা৷ সোলারে চলে বলে ফোন চার্জ বা ক্যামেরা চার্জ দেওয়া যায় না৷ রাতেও ঘরে থাকবে সামান্য পাওয়ারের আলো৷  এখানে খাবারের ভ্যারাইটি পাওয়া মুশকিল৷ খানিক খরচ সাপেক্ষও বটে৷ মূলত নিরামিষ খাবার পাওয়া যায়৷ তবে ইয়াক-এর মাংস পাওয়া যায় কখনও কখনও৷ আর হ্যাঁ, মিলবে রডোডেনড্রন ওয়াইন৷

কিভাবে যাবেন

এনজেপি, শিলিগুড়ি, বাগডোগরা বা দার্জিলিং থেকে গাড়ি ভাড়া নিয়ে যাওয়া যায়৷ শিলিগুড়ি বা দার্জিলিং মোড় থেকে শেয়ারে জিপও পাওয়া যায়৷ তবে তা রিম্বিক পর্যন্ত যায়৷ একটু বেশি পয়সা দিলে তবেই শ্রীখোলায় ছেড়ে দেয়৷ দার্জিলিং থেকে রিম্বিকের যাত্রাপথ  ৫-৬ ঘন্টা। রিম্বিক থেকে শ্রীখোলা যেতে ১৫-২০ মিনিট সময় লাগে। সকাল সাতটার রিম্বিকের বাসও মিলবে দার্জিলিং বাসস্ট্যান্ড থেকে।

কোথায় থাকবেন

শ্রীখোলা নদীর উপরে দার্জিলিং গোর্খা হিল কাউন্সিলের ট্রেকার্স হাট (জিটিএ লজ) রয়েছে। কলকাতা ও দার্জিলিঙের অফিস থেকে অগ্রিম বুক করা যায়। না হলে স্পট বুকিংয়েরও ব্যবস্থা রয়েছে। হাটে দ্বিশয্যার ঘর রয়েছে দুটি। বাকি ঘরগুলিতে ডর্মিটরি। এছাড়াও রয়েছে হোটের শোভরাজ ও গোপর্মা লজ৷ থাকার জায়গা তো সেখানে পাবেনই, আপনার ট্রেকিংয়েরও ব্যবস্থা করে দেবে তাঁরা৷

যাবতীয় জরুরি তথ্য ও হোটেল বুকিংয়ের জন্যে যোগাযোগ করতে পারেন রাজ্য পর্যটন কর্পোরেশন এর দফতরে।
ঠিকানা
ট্যুরিজম সেন্টার, ৩/২, বি বি ডি বাগ ইস্ট,  (স্টিফেন হাউসের পিছনে) , কোলকাতা ১। ফোন : ২২৪৩-৬৪৪০/ ২২৪৮-৮২৭১। ই -মেল tourismcentrekolkata@gmail.com। ওয়েবসাইট: www.wbtdc.gov.in / www.wbtourism.gov.in

×

করোনার প্রাদুর্ভাব বেরে যাওয়ায় অনেক ট্যুরিষ্ট প্লেস গুলোতে ভ্রমণ নিষিদ্ধ করা হয়েছে। তাই সেখানে ভ্রমণের প্ল্যান করলে আগে থেকে ভালো ভাবে খোঁজ খবর নিয়ে যাবেন।

দিক নির্দেশনা

আপনার রিভিউ দিন

* বাধ্যতামূলক ভাবে পূরণ করতে হবে।